জেনারেল বিভাগ

আন-নাহ্দা মডেল মাদরাসার বিশেষত্ব:

১. সৌদিআরব, মিশর ও কাতার এর শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের অনুকরণে বলিষ্ঠ ইসলামিক স্কলার তৈরির লক্ষ্যে পবিত্র কুরআনের ৫ পারা এবং বিষয় ভিত্তিক ৫০০ সহিহ হাদিস হিফয বাধ্যতামূলক।
২. আমাদের সিলেবাস এমনভাবে সাজানো হয়েছে যাতে শিক্ষার্থীগণ ভবিষ্যতে ইসলামী শরিয়াহ, আইন, মেডিকেল ও ইঞ্জিনিয়ারিংসহ জ্ঞানের যে কোন শাখায় নিজেকে প্রমাণ করতে পারে, ইন-শা-আল্লাহ।
৩. ইংরেজি ও আরবি ভাষায় পারদর্শী করার লক্ষ্যে চৎধপঃরপধষ ঊহমষরংয খধহমঁধমব ঈড়ঁৎংব ও চৎধপঃরপধষ অৎধনরপ ঈড়ঁৎংব এর নিয়মিত ক্লাস।
৪. কম্পিউটার ও প্রজেক্টরের মাধ্যমে বিশেষ ক্লাস নেয়া হয়।
৫. শিক্ষার্থীদের মেধা বিকাশ ও সৃজনশীলতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে দ্বি মাসিক সাহিত্য ম্যাগাজিন প্রকাশিত হয়।
৬. ইসলামি সংস্কৃতির চর্চা, শৃঙ্খলা ও শিষ্ঠাচার শিক্ষা দিতে নিয়মিত উরংপরঢ়ষরহব ঈষধংং এর ব্যবস্থা।
৭. বোর্ড পরিক্ষায় কাংক্ষিত ফলফল অর্জনে দক্ষ ও অভিজ্ঞ শিক্ষক দ্বারা নিবিড় তত্বাবধানের ব্যবস্থা।
৮. ৩য় শ্রেণির মধ্যেই সহীহভাবে কুরআন ও নামাজ শিক্ষা দেয়া হয়।
৯. দূর্বল ও অমনোযোগী শিক্ষার্থীদের জন্য বিশেষ ক্লাসের ব্যবস্থা রয়েছে।
১০. মেধাবী ইয়াতীম ও দরিদ্র শিক্ষার্থীদের জন্য বিশেষ স্কলারশিপের ব্যবস্থা রয়েছে।
১১. মাদরাসা ম্যানেজমেন্ট সফটওয়্যার ব্যবহার করা হয়।  
 

উদ্দেশ্য

 মানবিক গুণাবলির বিকাশ সাধন ও ইসলামের সঠিক শিক্ষা প্রদান। 
 যুগোপযোগী  ‘আলিম তৈরি। 
 সৎ, যোগ্য ও দেশপ্রেমিক নাগরিক তৈরি। 
 
বৈশিষ্ট্যসমূহ
 কুরআন-সুন্নাহভিত্তিক ‘ইলম অর্জন
 ইসলামের সঠিক শিক্ষা প্রদান
 আমল-আখলাক ও পোশাক-পরিচ্ছদে সুন্নাহর অনুসরণ
 উপযুক্ত ক্যারিয়ার গঠন
 রুটিনভিত্তিক জীবন-যাপনে অভ্যস্থকরণ
 দেশ সেবায় অংশগ্রহণ
 আরবী ভাষা চর্চার উপযুক্ত পরিবেশ
 ইংরেজি ভাষা চর্চার উপযুক্ত পরিবেশ 
 উন্নত আবাসন ও স্বাস্থ্যসম্মত খাবারের ব্যবস্থা
 শরীর চর্চা ও বিনোদনের ব্যবস্থা
 ইসলামী সংস্কৃতির চর্চা
 দেয়ালিকা ও ম্যাগাজিন প্রকাশ
 
ভর্তির নিয়মাবলী
ভর্তি কার্যক্রম: ০১ নভেম্বর থেকে ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত
 
 যে শ্রেণিতে ভর্তি করা হবে:
 বালক: প্লে থেকে ৯ম শ্রেণি পর্যন্ত ভর্তি করা হবে। 
 বালিকা: প্লে থেকে ৮ম শ্রেণি পর্যন্ত ভর্তি করা হবে। 
 হিফয: কায়েদা, আমপারা, নাযেরা, হিফয ও শুনানী। 
 
 ভর্তি পরীক্ষা:
 ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীরাই কেবল ভর্তির সুযোগ পাবে। 
 প্লে ক্লাসে ভর্তির ক্ষেত্রে অবিভাবকগণের সাক্ষাৎকার নেয়া হবে। 
 অন্য সকল ক্লাসে শিক্ষার্থীর লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষা নেয়া হবে। 

# ভর্তি পরিক্ষার নাম্বার ও বিষয়:

ক্রম

বিষয়

নাম্বার

১। 

আরবী

১০

২।

বাংলা

১০

৩।

ইংরেজি

১০

৪।

গণিত

১০

৫।

সাধারণ জ্ঞান

১০

৬। 

মৌখিক

১০

 

মোট

৬০
 
ভর্তিতে যা লাগবে
 নির্ধারিত ভর্তি ফরম (পূরণকৃত)  
 শিক্ষার্থীর ছবি: ৩ কপি (পাসপোর্ট সাইজ) 
 পিতার ছবি: ১ কপি (পাসপোর্ট সাইজ)
 মাতার ছবি: ১ কপি (পাসপোর্ট সাইজ)
 জন্ম সনদের ফটোকপি: ১ কপি
 ভর্তি ও বিবিধ ফি
 জানুয়ারি/চলতি মাসের টিউশন ফি
 অঙ্গিকারনামায় অভিভাবকের স্বাক্ষর
 ভর্তি কমিটির অনুমোদন 
 
প্রতিষ্ঠানের ইউনির্ফম:
 ছাত্রদের ড্রেস: নির্ধারিত রংয়ের শেরওয়ানী-পায়জামা, সাদা টুপি, সাদা গেঞ্জি, সাদা কেড্স এবং সাদা মোজা।
 ছাত্রীদের ড্রেস: সাদা হিজাব, কালো জামা, সাদা পায়জামা, কালো কেড্স এবং সাদা মোজা। 
 স্পোর্টস ড্রেস (ছাত্র): নির্ধারিত রংয়ের জ্যাকেট/জার্সি, ট্রাউজার, স্পোর্টস কেড্স।
 ছাত্রের ব্যক্তিগত তথ্যাবলি:
 একজন ছাত্রের শারিরীক ও মানসিক অবস্থার যথার্থ বিকাশে এবং তাকে সুষ্ঠুভাবে সঠিক পথে এগিয়ে নেয়ার লক্ষ্যে তার আচার-আচারণ, অভ্যাস, ভাললাগা, মন্দলাগা, বিশেষ কোনো অসুস্থতা/শারীরিক ত্রæটি ইত্যাদি তথ্যগুলো মাদরাসা কর্তৃপক্ষের জানা বিশেষ প্রয়োজন। কিছু কিছু তথ্য একান্ত পারিবারিক যা গোপনীয় হলেও পুত্র/পৌষ্যের কল্যাণের স্বার্থে অভিভাবক সেগুলো মাদরাসা কর্তৃপক্ষকে জানাবেন।
 
 
 বাধ্যতামূলক ছাড়পত্র প্রদান:
১. কোন শিক্ষার্থী মাদরাসার স্বার্থ-বিরোধী কোন কাজে জড়িত থাকলে তাকে ছাড়পত্র দেয়া হবে।
২. কোন শিক্ষার্থী মাদরাসার আইন-শৃংখলা পরিপন্থী কোন কাজ করলে তাকে ছাড়পত্র দেয়া হবে।
৩. কোন শিক্ষার্থী প্রযোজ্য বিধি-বিধান ভঙ্গ করলে তাকে ছাড়পত্র দেয়া হবে।
৪. কোন শিক্ষার্থী মাদরাসায় দ্বীনী পরিবেশ বজায় রাখতে ব্যর্থ হলে ছাড়পত্র দেয়া হবে।
৫. কোন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অসদুপায় অবলম্বন করলে তাকে ছাড়পত্র দেয়া হবে।
৬. কোন শিক্ষার্থীর নৈতিক চরিত্রের অবনতি জন্য তাকে ছাড়পত্র দেয়া হবে।
৭. কোন শিক্ষার্থী শিক্ষক অথবা অন্য কারো সাথে অসদাচারণ করলে তাকে ছাড়পত্র দেয়া হবে।
৮. ভর্তি পরবর্তী সময়ে কোন শিক্ষার্থীর ছোঁয়াচে অথবা বিকৃত রোগ (যা অন্যদের জন্য ক্ষতিকর) ধরা পড়লে সেক্ষেত্রে সকলের স্বার্থে প্রতিষ্ঠানের নির্দেশনা মেনে চলতে হবে।  
৯. কোন শিক্ষার্থী নিয়মিত বাড়ির কাজ না করলে, পড়া না পারলে, অপরিচ্ছন্ন থাকলে, ক্লাসে বই খাতা নিয়ে না আসলে ইত্যাদি কারণে তাকে ছাড়পত্র দেয়া হবে।
 
 ভর্তিকৃত শিক্ষার্থীর প্রতিষ্ঠান পরিবর্তনের নিয়মাবলি:
১. কোন ছাত্রের ভর্তিকার্য সম্পন্ন হওয়ার পর প্রতিষ্ঠান পরিবর্তনের ইচ্ছা করলে ভর্তি বাবদ প্রদেয় অর্থের কোন টাকা ফেরত পাবে না। এক্ষেত্রে চলতি মাসের মাসিক ফি পরিশোধ করে ছাত্রের অভিভাবক টিসি গ্রহণ করবেন।
২. কোন ছাত্র কর্তৃপক্ষের অজ্ঞাতসারে মাদরাসা থেকে চলে গেলে এর দায়-দায়িত্ব প্রতিষ্ঠান বহন করবে না।
৩. ভর্তিকৃত ছাত্রদেরকে পর্যায়ক্রমে ৮ম শ্রেণীতে উত্তীর্ণ হয়ে বাধ্যতামূলকভাবে রেজিস্টেশন করতে হবে।